প্রেম ভেঙে গেলে কে বেশী কষ্ট পায়? ছেলে নাকি মেয়ে?

প্রেমের সম্পর্ক যেমন অনেক আবেগের হয় ঠিক তেমনভাবে তা অনেক নাজুকও হয়। এই সম্পর্কটি টিকিয়ে রাখা অনেক সময় অনেক বেশি কঠিন হয়, এর কারন হল- সঠিক সঙ্গী না নির্বাচন করা বা পারিবারিক সমস্যা বা অন্য অনেক কিছু হয়ে থাকে। প্রেম ভেঙে গেলে উভয়ের অনেক কষ্ট হয় কিন্তু কার কষ্ট বেশি হয় তা নির্ভর করে প্রেমের গভীরতা ও একে অন্যের প্রতি ভালবাসার উপর। অনেক সময় এমনও হয় যে প্রেম ভেঙে গেলে কারও কোন কষ্ট হয় না বরং মন থেকে একটা বোঝা নেমে যায়, এর পেছনের একটি কারণ, তা হল একে অপরের প্রতি তিক্ততা।

বেশির ভাগ সময় প্রেম ভেঙে গেলে মেয়েরা প্রথম দিকে বেশি কষ্ট পায় আর ছেলেরা কষ্ট পায় কিছু দিন পর থেকে। মেয়েরা যখন তাদের এই সম্পর্কের হতাশা প্রায় কাটিয়ে উঠে, ঠিক তখনই ছেলেরা নিজেদের জীবন নিয়ে হতাশায় ভুগতে শুরু করে। এই সময় মেয়েরা নতুন করে সব কিছু করতে চায় আর ছেলেরা পুরাতন কথা চিন্তা করে কষ্ট পেতে থাকে। এই সময়টিতে ছেলেরা আরও বেশি হতাশ হয়ে পড়ে কারণ তখন তারা দেখে যে মেয়েটি নতুন করে সব শুরু করেছে বা নতুন কোন সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েছে।

একটি মেয়ে একটি ছেলের সাথে ব্রেকাপ করছে

যখন একটি মেয়ে তার প্রেমিকের সাথে ব্রেকাপ করে তখন ছেলেটি হতাশা ও কষ্টে ভুগতে থাকে, এটি শুধুমাত্র তখন হয় যখন ছেলেটি মেয়েটিকে অনেক বেশি ভালবাসে ও তার সাথে নিজের পুরো জীবনটিকে কল্পনা করে রাখে। ব্রেকাপের পরের এই সময়টি ছেলেদের জন্য অনেক বেশি কঠিন হয়, তারা খুব তারাতারি এই সব কিছু থেকে উৎরিয়ে উঠতে পারে না, অনেক সময় তারা এত বেশি হতাশ হয়ে পরে যে তাদের মনে হতে থাকে যে তাদের জীবন শেষ হয়ে গেছে ও তার আর বেচে থেকে লাভ নেই। এই রকম ভাবে ব্রেকাপের পর ছেলেরা সাধারনত সহসা নতুন কোন সম্পর্কে নিজেকে জড়াতে চায় না।

একটি ছেলে একটি মেয়ের সাথে ব্রেকাপ করছে

অন্যদিকে কোন ছেলে যদি কোন মেয়ের সাথে ব্রেকাপ করে তখন মেয়েটি অনেক বেশি ধরনের ধাক্কা খায় কিন্তু অনেক কষ্ট করে হলেও নিজেকে সামলে নেয়। একটি ছেলে ব্রেকাপের পরে ভবঘুরে হয়ে ঘুরতে পারে, কিন্তু একটি মেয়ে তার পরিবারের কথা চিন্তা করে কোন কিছুই করতে পারে না বরং নিজের মন কে বুঝিয়ে নতুন করে সব শুরু করার চেষ্টা করে, কিন্তু সে মন থেকে কোনদিন সেই ছেলেকে ভুলতে পারে না।