দেখে নিন, শরীরের কোথায় তিল থাকলে কি হয়?

শরীরের কোথায় তিল থাকলে কি হয় তা কি আপনার জানা আছে? প্রাচীন সমুদ্র শাস্ত্র অনুযায়ী আপানার শরীরের থাকা প্রতিটি তিল আপনার ভবিষ্যৎ সম্পর্কে ধারণা দেয়। শাস্ত্র অনুযায়ী শরীরের বিভিন্ন অংশে তিলের উপস্থিতি, রং, আকৃতি আপনার ভবিষ্যৎ নির্ধারণ করে। ভারতীয় উপমহাদেশীয় পণ্ডিতরা এ তত্ত্ব আবিষ্কার করেছেন দীর্ঘদিনের গবেষণার পর।

তাদের মতে নারীদের শরীরে বাঁ দিকে ও পুরুষের শরীরে ডান দিকে তিল থাকা শুভ, এছাড়াও তাদের মতে কোন ব্যক্তির ১২টার কম তিল হওয়া শুভ ও ১২টির বেশি তিল হওয়া মোটেও শুভ নয়।

মুখের আশেপাশে তিল থাকলে সেই ব্যক্তি সুখী ও ভদ্র হয়, এছাড়াও এ ধরনের ব্যক্তি খুব ভাল জীবনসঙ্গী পায়। ঠোঁটের নিচে তিল থাকা মোটেও শুভ নয়, কিন্তু যাদের ঠোঁটের উপরে তিল রয়েছে তাদের জীবনে ভালবাসার কোন কমতি থাকে না।

যে সকল পুরুষের নাকে তিল রয়েছে তারা প্রতিভাবানসম্পন্ন হয়, আর যে সকল নারীর নাকে তিল রয়েছে তারা সৌভাগ্যবতী হয়।

কোন ব্যক্তির থুতনিতে তিল থাকলে তারা রুক্ষ স্বভাবের হয় ও খুব অল্পেই রেগে যান। এরা সাধারনত সহজে মানুষের সাথে মেলামেশা করতে পারে না।

কোন ব্যাক্তির হাতে তিল থাকে তারা চালাক-চতুর ও শক্তিশালী হন। যাদের ডান হাতের পিছনে তিল থাকে, তারা জীবনে অনেক ধন সম্পদ উপার্জন করেন আর যাদের বাম হাতে তিল থাকে তারা অতিরিক্ত টাকা খরচ করেন।

যে সকল ব্যাক্তির বৃদ্ধাঙ্গুলে তিল থাকে তারা কর্মঠ, সদ্ব্যবহারসম্পন্ন এবং ন্যায়প্রিয় হন আর যাদের মধ্যমায় তিল থাকে তারা সারা জীবন সুখ শান্তিতে থাকেন।

যে সকল ব্যক্তির কাঁধে তিল থাকে তারা অনেক আত্মবিশ্বাসী ও স্বাধীনচেতা হন। তারা তাদের বিষয়ে অন্য কারো মতামত নিতে পছন্দ করেন না।

যে সকল ব্যক্তির কোমরে তিল থাকে তাদের জীবন থেকে সমস্যা দূর হয় না। তারা সব সময় সমস্যায় জড়িয়ে থাকেন ও তার সমাধান করতে করতে বিরক্ত হয়ে পরেন।

যে সকল ব্যাক্তির পায়ে তিল থাকে তারা অতিরিক্ত ভ্রমন প্রিয় হন ও জীবনকে উপভোগ করতে খুব বেশি পছন্দ করেন।

যে সকল ব্যক্তির পেটে তিল থাকে তারা পেটুক হয় ও মিষ্টি ধরনের খাবার দেখলে তারা লোভ সামলাতে পারেন না।